Latest News

হেপাটাইটিস-এ

হেপাটাইটিস-এ কী ?
হেপাটাইটিস-এ বা সাধারণ জন্ডিস লিভারের একটি সংক্রামক রোগ যা হেপাটাইটিস-এ ভাইরাস দ্বারা হয়ে থাকে। এই রােেগর জটিলতা বিভিন্ন রকম হয়, কখনো হালকা অসুস্থতা যা কয়েক সপ্তাহ স্থায়ী হয়, আবার কখনো গুরুতর অসুস্থতা যা বেশ কয়েক মাস স্থায়ী হয়। কিন্তু একটু সচেতনতাই সাধারণ জন্ডিস থেকে রক্ষা করতে পারে।

হেপাটাইটিস-এ এর উপসর্গগুলাে কি কি ?
অনেক সময় হেপাটাইটিস-এ তে আক্রন্ত ব্যক্তির কোন উপসর্গ থাকে না। যদি উপসর্গ দেখা যায়, সেগুলো হল-
জ্বর
ক্লান্তি
ক্ষুধামন্দা
বমি বমি ভাব
বমি পেটে ব্যাথা
গাঢ় প্র¯্রাব
গিটে ব্যাথা
জন্ডিস

হেপাটাইটিস-একতটা গুরুতর ?
প্রায় সব মানুষ যারা হেপাটাইটিস-এ তে আক্তন্ত হয় পুরোপুরি সুস্থাবস্থায় ফিরে আসে এবং লিভারে দীর্ঘস্থায়ী কোনো ক্ষতি হয় না। কিন্তু হেপাটাইটিস-এ থেকে পুরোপুরি সুস্থাবস্থায় ফিরে আসতে অনেকদিন সময় লেগে যায় যা তার নিজস্ব, সামাজিক এবং অর্থনৈতিক কর্মকান্ডে ব্যাঘাত ঘটায়। এছাড়াও হেপাটাইটিস-এ এর কারণে অনেকক্ষেত্রে অপঁঃব ষরাবৎ ভধরষঁৎব হয়, যার কারণে মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে।

হেপাটাইটিস-এ কিভাবে ছড়ায় ?
সাধারণত সংক্রামিত খাদ্য বা পানীয় এর মাধ্যমে হেপাটাইটিস-এ ছড়ায়। একজন সুস্থ ব্যক্তি হেপাটাইটিস-এ দ্বারা আক্রান্ত হতে পারেন বিভিন্ন উপায়ে-
আক্রান্ত ব্যক্তির সং¯পর্শের মাধ্যমে-
সঠিকভাবে হাত পরিষ্কার না করে খাদ্য বা অন্যান্য বস্তু সপর্শ করলে
পিতা-মাতা অথবা শুশ্রুষাকারী, আক্রান্ত শিশুর ডায়াপার পরিবর্তনের পর অথবা মল পরিষ্কারের পর সঠিকভাবে হাত পরিষ্কার না করে খাদ্য বা অন্যান্য বস্তু ¯পর্শ করলে
সংক্রামিত ব্যক্তির সাথে যৌন মিলনের ফলে

সংক্রামিত খাদ্য বা পানীয় এর মাধ্যমে।
সংক্রামিত খাদ্য বা পানীয় এর মাধ্যমে হেপাটাইটিস-এভাইরাস ছড়ায় (হিমায়িত খাদ্য এর মধ্যে অন্তর্ভুক্ত) যেখানে প্রয়োজনীয় স্যানিটারির ব্যবস্থা, ব্যক্তিগত পরিচ্ছন্নতা এবং সচেতনতার অভাব বিরাজমান সেখানে হেপাটাইটিস- এ হওয়ার ঝুঁকি অনেক বেশী।

কিভাবে হেপাটাইটিস-এ প্রতিরাধে করা যায় ?

হেপাটাইটিস-এ থেকে ঝুঁকি কমাতে:
সংক্রামিত ব্যক্তির রক্ত, মল বা অন্যান্য শারীরিক তরল সং¯পর্শে আসার পর অবশ্যই ভালভাবে হাত পরিষ্কার করতে হবে।
বিশুদ্ধ, পরিষ্কার ও নিরাপদ খাবার এবং পানি ব্যবহার করতে হবে

টয়লেট ব্যবহারের পর, ডায়াপার পরিবর্তনের পর, খাবার পরিবেশন ওখাবারের পূর্বে সাবান দিয়ে হাত ভালভাবে পরিষ্কার করতে হবে
রাস্তার খাবার এবং পানি পরিহার করতে হবে।

হেপাটাইটিস-এ প্রতিরোধের সবচেয়ে ভালো উপায় হলো হেপাটাইটিস-এ এর ভ্যাকসিন। যারা হেপাটাইটিস-এ এর ঝুঁকিতে আছে তাদের জন্য এই ভ্যাকসিন অবশ্যই নিতে হবে। হেপাটাইটিস-এ ভ্যাকসিন ২টি ডাজে, যা ৬ মাসের ব্যবধানে দেয়া হয়।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *